Fri. Dec 4th, 2020

Dakter Achen

Forget Medicine, GO With Nature

শহরের বদ্ধ ঘরে মুক্ত বাতাস ৩ টি গাছে

1 min read

আজকাল মানুষ উচ্চ শিক্ষায় শিক্ষিত হবার জন্যে  সবাই শহরের দিকে ছোটে। কিন্তু শহর এর দূষিত বাতাসে মানুষ একবার হলেও তার গ্রাম কে মনে করে।

বলতে গেলে মানুষ শহর এর দূষিত বাতাসে থেকে থেকে আরো অসুস্থ হয়ে পড়ছে। সুস্থ মানুষ অই এই বাতাসে অসুস্থ হয়ে পড়ে আর অসুস্থ মানুষ এর তো কথাই নেই।

শহর এর মধ্যেও মুক্ত বাতাস পাওয়া যাবে একটু খানি সবুজ থেকে। সবুজ রঙ এর কথা বলছি না সবুজ গাছের কথা বলছি।

খুব কম খরচেই ঘরের মধ্যে ও একটু খানি  বিশুদ্ধ বাতাস পাওয়া যায়। সারাদিন বাইরের ক্লান্তি শেষ এ আপনি যখন একটু মুক্ত বাতাস পাবেন, একটু সবুজ দেখবেন মন নিমিষেই ভালো হয়ে যাবে।

চলুন দেখে নেই ঘরের মধ্যে কম আলোয় বা আলো ছাড়া কিভাবে বা কি কি গাছ লাগানো যায়।

১.বাতাস বিশুদ্ধ করণে প্রথমেই আছে  “পিস লিলি” ইংরেজিতে Peace lily.  নামেই বুঝা যাচ্ছে শান্তির কিছু একটা। এই গাছের জন্যে প্রয়োজন শুধুই বাতাস।

আপনি এটি কে জানালার পাশে বা দরজার পাশে রাখবেন। সাপের ফণার মতো সাদা রঙ এর খুব সুন্দর ফুল ও দেয় এটি। এই গাছের জন্যে মাটি হবে দোয়াশ ও বালি মাটির মিশ্রণ।

চাইলে নার্সারি থেকে ২০ বা ৫০টাকার মাটি কিনেও আনতে পারেন। অথবা অনেকে অনলাইন এ ও মাটি বিক্রি করে এবং হোম ডেলিভারি ও দেয়। আর গাছ ও পাবেন নার্সারি বা অনলাইন।

দাম ৩০-১০০ গাছের সাইজ ভেদে।

২. মানি প্লান্ট বা Money plant. হ্যা এটা টাকার গাছ। আর এই টাকা দিয়ে শুধু মাত্র বিশুদ্ধ অক্সিজেনই পাওয়া যায়। এই গাছ এর ভালো দিক হলো মাটি ছাড়া শুধু মাত্র পানিতে ও হয়।

লতানো গাছ। চাইলে গ্রিলে লতিয়ে দেওয়া যায়। কোনো প্রকার আলো বাতাস ছাড়াই হয়। রোদ পেলে দ্রুত বাড়ে। যেখানে সেখানে খুব সহজে এই গাছ পাওয়া যায়।

fresh air

নার্সারি তে দাম নিতে পারে ২০-৫০টাকা। আর চাইলে কিনতে পারেন এর জন্যে সুন্দর একটা কাচের জার। এতে শিকড় দেখতে সুন্দর দেখাবে আর শোপিস এর কাজ দিবে।

চাইলে কেটে কেটে ছোটো করে কাচের সুদৃশ্য জারে দিবেন অথবা কাচের গ্লাস এ দিয়ে জানালার গ্রিলে বা দেওয়ালে লতিয়ে দিবেন।

৩. লাকি ব্যাম্বু বা ইংরেজিতে lucky bamboo। বাশ গাছ সাধারণত ঘাস গোত্রের। লাকি ব্যাম্বু বা ভাগ্যের বাশ আসলেই বিশুদ্ধ বাতাস দিয়ে জীবন বাচাতে ও পারে, রোগ ও দূর করতে পারে।

এই গাছ খুব সহজেই নার্সারি তে পাওয়া যায়। দাম প্রতি স্টিক শিকর ছাড়া ১০-৩০টাকা। গাছ শিকর সহ ১০-৪০টাকা।এই গাছ ও কোনো মাটি ছাড়াই পানিতে বাচে। সূর্য এর আলোর ও দরকার হয়না।

fresh air

এই গাছের জন্যে ও সুদৃশ্য কাচের গ্লাস বা কাচের জার কিনতে পারেন। খাবার টেবিল এ রেখে দিতে পারেন একটি গ্লাস এ। শিকর পানিতে দেখতে অনেক সুন্দর দেখায়। শোপিস এর ঝামেলা কমায়।

গাছ কোনো সময় মানুষ এর অপকার করেনা। গাছ সব সময় উপকার করেই যায়। গাছ মানুষ এর পরম বন্ধু। কত কবি কত ভাবে গাছের উপকারিতার কথা  বলে গেছেন।

মানুষ কে কত ভাবে বলা হয়ে থাকে গাছ লাগানোর কথা। সবাই যদি একটি করে ও গাছ লাগায় তবে খা খা মরুভূমি ও অরণ্যে পরিণত হবে।

উপরের ৩টি গাছ চাইলে বাথরুম ও রাখা যাবে এক কোণায় বা বেসিন এর উপর। চেস্টা করবেন প্রতিদিন বা প্রতি দুই দিন পর পর পানি পাল্টানোর। তাহলে গ্লাস নোংরা হওয়ার ঝামেলা ও থাকেনা।

বা মশা হওয়ার ও ঝামেলা থাকেনা। আর চেষ্টা করবেন সপ্তাহে বা মাসে একবার হলেও রোদ লাগানোর। কারণ প্রত্যেক গাছের যে রোদের প্রয়োজন হয় এটাও মহাসত্য।

একটু কষ্ট করলেই শহর টাকে বদলে ফেলা সম্ভব। নিজেকে সজীব আর সতেজ রাখা সম্ভব।

 

গাছের ছবিগুলো আগে গুগলে দেখে পড়ে নার্সারি থেকে কিনবেন।কারণ অনেক নার্সারি তে নাম না জানায় ঠকিয়ে ফেলে। আর ৩টি নামই প্রচলিত নাম।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *